সহীহ শামায়েলে তিরমিযী ৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

পোশাক পরিধান করা কোন ক্ষেত্রে ফরয, কোন ক্ষেত্রে হারাম, কোন ক্ষেত্রে মুস্তাহাব, আবার কোন ক্ষেত্রে মুবাহ। ফরয পোশাক হলো এতটুকু পরিধান করা, যা দ্বারা সতর আবৃত করা যায়। মুস্তাহাব হলো যার ব্যাপারে শরীয়ত উৎসাহ দান করেছে। যেমন- দু’ঈদে উত্তম পোশাক পরিধান করা। মাকরূহ ঐ পোশাক, যা পরিধান করতে উৎসাহিত করা হয়নি। যেমন- ধনীদের সর্বদা ছিন্ন ও পুরাতন কাপড় পরিধান করা। হারাম ঐ পোশাক, যা শরীয়তে নিষিদ্ধ। যেমন- পুরুষের জন্য ওজর ব্যতীত রেশমী কাপড় পরিধান করা ইত্যাদি।


রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এর প্রিয় পোষাক ছিল কামীস:

৪৪. উম্মে সালামা (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম পোষাক হিসেবে ‘কামীস’ বা জামা সর্বাধিক পছন্দ করতেন।[1]

حَدَّثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ حُمَيْدٍ الرَّازِيُّ ، قَالَ : حَدَّثَنَا الْفَضْلُ بْنُ مُوسَى ، وَأَبُو تُمَيْلَةَ ، وَزَيْدُ بْنُ حُبَابٍ ، عَنْ عَبْدِ الْمُؤْمِنِ بْنِ خَالِدٍ ، عَنْ عَبْدِ اللَّهِ بْنِ بُرَيْدَةَ ، عَنْ أُمِّ سَلَمَةَ ، قَالَتْ : " كَانَ أَحَبَّ الثِّيَابِ إِلَى رَسُولِ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ الْقَمِيصُ " .

حدثنا محمد بن حميد الرازي ، قال : حدثنا الفضل بن موسى ، وأبو تميلة ، وزيد بن حباب ، عن عبد المؤمن بن خالد ، عن عبد الله بن بريدة ، عن أم سلمة ، قالت : " كان أحب الثياب إلى رسول الله صلى الله عليه وسلم القميص " .


Ummul Mu-mineen, Ummi Salamah Radiyallahu 'anha relates: "Of all the clothing, Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam preferred wearing the qamis (Thowb, kurtaa) the most".

বিভিন্ন হাদীসের ভিত্তিতে বুঝা যায়, রাসূলুল্লাহর বিভিন্ন ধরনের জামা পরিধান করতেন। তাঁর কোনটির দৈর্ঘ্য ছিল টাখনু অবধি। কোনটি কিছুটা ছোট, যা হাঁটুর নিম্নভাগ পর্যন্ত ছিল। আবার কোনটির হাতা ছিল হাতের আঙ্গুলের প্রান্ত পর্যন্ত লম্বা। কোনটির হাতা কিছুটা ছোট, যা কজি পর্যন্ত ছিল।

পুরুষের পোশাক পরিধানের ব্যাপারে রাসূলুল্লাহ (সাঃ) একটি বিশেষ দিক অত্যন্ত গুরুত্ব প্রদান করেছেন। তিনি পুরুষের পোশাকের নিচের অংশ পায়ের গোড়ালী থেকে উপরে রাখার আদেশ করেছেন এবং গোড়ালীর নিচে পাজামা, লুঙ্গি, জামা বা কোন পোশাক পরিধান করতে হারাম ঘোষণা করেছেন।

সর্বদা রাসূলুল্লাহ (সাঃ) এর লুঙ্গি ও জামা ‘টাখনুর’ উপরে থাকত। সাধারণত তিনি পোশাকের নিচের অংশ হাঁটু ও গোড়ালীর বরাবর বা ‘নিসফে সাক’ পর্যন্ত পরিধান করতেন। বিভিন্ন হাদীসে তিনি মুসলিম উম্মাহর পুরুষগণকে এভাবে পোশাক পরিধান করতে আদেশ দিয়েছেন। সুতরাং মুসলিম পুরুষের জন্য স্বেচ্ছায় টাখনুর নিচে পোশাক পরিধান করা হারাম। আবু হুরায়রা, আবদুল্লাহ ইবনে উমার ও অন্যান্য সাহাবী কর্তৃক বর্ণিত হাদীসে রাসূলুল্লাহ (সাঃ) বলেন, যে ব্যক্তি দাম্ভিকতার সাথে নিজের পোশাক ঝুলিয়ে পরিধান করবে, আল্লাহ তা’আলা কিয়ামতের দিন তাঁর দিকে রহমতের দৃষ্টিতে তাকাবেন না।[সহীহ বুখারী, হা/৩৬৬৫; সহীহ মুসলিম, হা/৫৫৭৮।]

মুসলিমের পোশাকের নীতি :

(১) পুরুষের পোশাক রেশমী হবে না।

(২) পোশাক সতর ঢাকার মতো হবে।

(৩) পুরুষের পোশাক মহিলাগণ পরবে না। আর মহিলা পুরুষের পোশাক পরবে না।

(৪) পোশাক যেন অহংকার প্রকাশার্থে না হয়।

(৫) পুরুষরা টাখনুর নিচে পোশাক পরিধান করবে না।

(৬) ইচ্ছাকৃতভাবে কাফিরদের সাদৃশ্য অবলম্বনার্থে তাদের পোশাক পরিধান করা যাবে না।


 The 'ulama have written different reasons for Sayidina Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam preferring to wear a qamis (Thowb, kurtah). Some say it is because it covers the body well and
 covers it better than a lungi etc. Some say because it is 'qumait' and besides it is less of a burden on the body, whereas a sheet has to be straightened every now and then. Some are of the opinion that it does not create pride in a person, as other clothing does. According to this humble servant the reason is because it covers the satr well, and the same time it is neat, whereas in some clothing there is less beauty, like the lungi, or it does not cover the satr well, like the top sheet. The eighth hadith in this chapter seems contrary to this hadith. lt shall be compared and reconciled there.


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

৪৫. মু’আবিয়া ইবনে কুররা (রাঃ) তাঁর পিতা হতে বর্ণনা করেন, তিনি বলেন, আমি মুযায়না গোত্রের একদল লোকের সাথে বায়’আত গ্রহণ করার জন্য রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এর কাছে উপস্থিত হলাম। এ সময় তাঁর জামার বোতাম খোলা ছিল। আমি তখন (বরকত লাভ করার জন্য) জামার ফাঁক দিয়ে হাত ঢুকিয়ে মোহরে নবুওয়াত স্পর্শ করলাম।[1]

حَدَّثَنَا أَبُو عَمَّارٍ الْحُسَيْنُ بْنُ حُرَيْثٍ ، قَالَ : حَدَّثَنَا أَبُو نُعَيْمٍ ، قَالَ : حَدَّثَنَا زُهَيْرٌ ، عَنْ عُرْوَةَ بْنِ عَبْدِ اللَّهِ بْنِ قُشَيْرٍ ، عَنْ مُعَاوِيَةَ بْنِ قُرَّةَ ، عَنْ أَبِيهِ ، قَالَ : أَتَيْتُ رَسُولَ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ فِي رَهْطٍ مِنْ مُزَيْنَةَ لِنُبَايِعَهُ ، " وَإِنَّ قَمِيصَهُ لَمُطْلَقٌ ، أَوْ قَالَ : زِرُّ قَمِيصِهِ مُطْلَقٌ قَالَ : فَأَدْخَلْتُ يَدِي فِي جَيْبِ قَمِيصِهِ , فَمَسَسْتُ الْخَاتَمَ " .

حدثنا أبو عمار الحسين بن حريث ، قال : حدثنا أبو نعيم ، قال : حدثنا زهير ، عن عروة بن عبد الله بن قشير ، عن معاوية بن قرة ، عن أبيه ، قال : أتيت رسول الله صلى الله عليه وسلم في رهط من مزينة لنبايعه ، " وإن قميصه لمطلق ، أو قال : زر قميصه مطلق قال : فأدخلت يدي في جيب قميصه , فمسست الخاتم " .


Qurrah bin Ilyaas Radiyallahu'Anhu relates: "I came with a group from the tribe of Muzeenah to make bay'ah (pay allegiance) to Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam. The button loop of Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam's qamis was open. I put my hand in the collar of Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam's qamis to touch the Seal of Prophethood (to gain
barakah)".

বিভিন্ন হাদীসের আলোকে মনে হয় যে, রাসূলুল্লাহ (সাঃ) এর জামার বোতাম ছিল। তবে তিনি সাধারণত বোতাম লাগাতেন না। ফলে জামার ভেতর হাত প্রবেশ করিয়ে পিঠের মোহরে নবুওয়াত স্পর্শ করা সহজ ছিল।


When he visited Sayyidina Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam he found the collar of Sayyidina Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam's qamis open. It is characteristic of one who loves, that every act of his beloved sinks into his heart. Sayyidina 'Urwah Radiyallahu'Anhu, who is a narrator of this says: "I have never seen Mu'aawiyah (bin Qurrah - Radiyallahu'Anhu) and his son button up their collars. Be it summer or winter, their collars were always open". Their love for Sayyidina Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam has given us a glimpse of each and every act and deed of the beloved Rasul of Allah, Sallallahu 'Alayhi Wasallam. 'Jazahumullahu 'anna wa-'an saa-iril ummati ahsanal jazaa'.


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

তিনি ইয়ামেনী নকশী কাপড়ও পরিধান করতেন:

৪৬. আনাস ইবনে মালিক (রাঃ) হতে বর্ণিত। একদা নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম উসামা ইবনে যায়েদ (রাঃ)-এর কাঁধে ভর করে বাইরে বের হলেন। এ সময় তাঁর দেহে পরা ছিল একটি ইয়ামেনী নকশী কাপড়। তারপর তিনি লোকদের নামাযের ইমামতি করেন।[1]

حَدَّثَنَا عَبْدُ بْنُ حُمَيْدٍ ، قَالَ : حَدَّثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ الْفَضْلِ ، قَالَ : حَدَّثَنَا حَمَّادُ بْنُ سَلَمَةَ ، عَنْ حَبِيبِ بْنِ الشَّهِيدِ ، عَنِ الْحَسَنِ ، عَنْ أَنَسِ بْنِ مَالِكٍ ، " أَنَّ النَّبِيَّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ خَرَجَ وَهُوَ يَتَّكِئُ عَلَى أُسَامَةَ بْنِ زَيْدٍ عَلَيْهِ ثَوْبٌ قِطْرِيٌّ " , قَدْ تَوَشَّحَ بِهِ ، فَصَلَّى بِهِمْ .

حدثنا عبد بن حميد ، قال : حدثنا محمد بن الفضل ، قال : حدثنا حماد بن سلمة ، عن حبيب بن الشهيد ، عن الحسن ، عن أنس بن مالك ، " أن النبي صلى الله عليه وسلم خرج وهو يتكئ على أسامة بن زيد عليه ثوب قطري " , قد توشح به ، فصلى بهم .


Anas bin Maalik Radhiyallahu 'Anhu reports: "Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam came out of his house with the assistance of Usaamah bin Zayd. At that time he was wrapped in a Yamaani printed sheet. Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam came and led the Sahaabah in prayer".

রাসূলুল্লাহ (সাঃ) অসুস্থতার কারণে উসামা (রাঃ) এর কাঁধে ভর করে এসেছিলেন।


'Daar Qutni' has stated that this incident took place when Sayyidina Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam was ill. For this reason he was assisted by Sayyidina Usaamah bin Zayd Radhiyallahu 'Anhu. It is possible that it was the time of Sayyidina Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam's illness before his death. This hadith will also be mentioned in the chapter on 'Sayyidina Rasulullah Sallallahu 'Alayhi Wasallam leaning on something'. Imaam Tirmidhi has written a surprising incident on the sanad (chain of narrators) of this hadith, from which we can gauge the intense love of the muhadditheen for the hadith, and their detachment from this unstable and materialistic world. Muhammad bin AI-Fadl says: "Yahya bin Mu'een (who is a great imaam and scholar of hadith -some 'ulama have said that he has written ten lakh -100,000- ahaadith with his own hands) asked me as soon as I sat down (when visiting him), about this hadith. I started reciting it to him. He said: 'I desire you to read it out from your kitaab so that it may be more satisfying"' Muhammad bin AI-Fadl says: 'I stood up to go inside and fetch the kitaab. He caught me by my qamis and said: "First dictate it to me from memory, so that I may write it down. There is no surety of life and death. It is possible I may meet you or Imay not meet you again. You may repeat it from the kitaab later'. Muhammad bin AI-Fadl says: 'I recited it to him from memory, then brought the kitaab and read it out again from the kitaab'. Allahu Akbar! He did not have that little assurance that either of them would live till he went inside to get a kitaab and return. His love for the hadith was such that he did not even like to wait till the kitaab was brought from inside the room.


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

তিনি নতুন কাপড় পরিধানকালে কাপড়ের নাম উচ্চারণ পূর্বক দু’আ পাঠ করতেন :

৪৭. আবু সাঈদ খুদরী (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম যখন নতুন কাপড় পরিধান করতেন তখন কাপড়ের নাম পাগড়ি অথবা কামীস অথবা চাদর ইত্যাদি উচ্চারণ করতেন। তারপর তিনি এ দুআ পরতেনঃ

اللَّهُمَّ لَكَ الْحَمْدُ كَمَا كَسَوْتَنِيهِ ، أَسْأَلُكَ خَيْرَهُ وَخَيْرَ مَا صُنِعَ لَهُ ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّهِ وَشَرِّ مَا صُنِعَ لَهُ

অর্থাৎ হে আল্লাহ! তোমারই জন্য যাবতীয় প্রশংসা। যেহেতু তুমিই আমাকে তা পরিধান করিয়েছ। আমি তোমার কাছে এর কল্যাণ প্রার্থনা করছি, আরো কল্যাণ চাচ্ছি যে উদ্দেশে এটা তৈরি করা হয়েছে তাঁর। আর আমি তোমার স্মরণাপন্ন হচ্ছি এর যাবতীয় অনিষ্ট হতে এবং যে উদ্দেশে তৈরি করা হয়েছে তাঁর অনিষ্ট হতে।[1]

حَدَّثَنَا سُوَيْدُ بْنُ نَصْرٍ ، قَالَ : حَدَّثَنَا عَبْدُ اللَّهِ بْنُ الْمُبَارَكِ ، عَنْ سَعِيدِ بْنِ إِيَاسٍ الْجُرَيْرِيِّ ، عَنْ أَبِي نَضْرَةَ ، عَنْ أَبِي سَعِيدٍ الْخُدْرِيِّ ، قَالَ : كَانَ رَسُولُ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ , إِذَا اسْتَجَدَّ ثَوْبًا سَمَّاهُ بِاسْمِهِ عِمَامَةً أَوْ قَمِيصًا أَوْ رِدَاءً ، ثُمَّ يَقُولُ : " اللَّهُمَّ لَكَ الْحَمْدُ كَمَا كَسَوْتَنِيهِ ، أَسْأَلُكَ خَيْرَهُ وَخَيْرَ مَا صُنِعَ لَهُ ، وَأَعُوذُ بِكَ مِنْ شَرِّهِ وَشَرِّ مَا صُنِعَ لَهُ " .

حدثنا سويد بن نصر ، قال : حدثنا عبد الله بن المبارك ، عن سعيد بن إياس الجريري ، عن أبي نضرة ، عن أبي سعيد الخدري ، قال : كان رسول الله صلى الله عليه وسلم , إذا استجد ثوبا سماه باسمه عمامة أو قميصا أو رداء ، ثم يقول : " اللهم لك الحمد كما كسوتنيه ، أسألك خيره وخير ما صنع له ، وأعوذ بك من شره وشر ما صنع له " .


Abu Sa'eed Khudari (R.A) says, "When Rasulullah (S.A.W) put on a new garment, he would in happiness mention that garment's name. For example, 'Allah Ta'aala gave me this qamis (thowb, kurtah), 'amaamah (turban) sheet, etc" Then recited this du'aa:

'Allahumma lakal hamdu kama kasauw- tanihi, as-aluka khayrahu wa-khayra ma-suni'a lahu wa-a'u- dhu bika min sharrihi wa-sharri ma-suni'a lahu'.

Translation

"Oh Allah, all praise and thanks to You for clothing me with this (garment). I ask You for the good of it and the good of what it was made for, and I ask Your protection from the evil of it and theevil of what it was made for."

যখন রাসূলুল্লাহ (সাঃ) কোন নতুন জামা পরিধান করতেন, তখন আনন্দ প্রকাশার্থে তাঁর নাম নির্ধারণ করতেন। যেমন- বলতেন, আল্লাহ তা’আলা আমাকে এ জামাটি বা পাগড়ীটি দান করেছেন। তারপর দু’আ পাঠ করে পরিধান করতেন।

The goodness and badness of a garment is evident and 'for the good and bad for which it was made' means forsummer and winter, elegance etc. For whatever reason it is worn, the goolness in it is that it may be used to obtain Allah's pleasure, like performing 'ibaadah (devotion) with it. To use it for a bad cause would be in disobeying Allah or to create pride, arrogance etc.


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এর একটি প্রিয় পোষাক ছিল হিবারা :

৪৮. আনাস ইবনে মালিক (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এর নিকট সর্বাধিক প্রিয় কাপড় হলো (ইয়ামানে তৈরি চাদর) হিবারা।[1]

حَدَّثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ بَشَّارٍ ، قَالَ : حَدَّثَنَا مُعَاذُ بْنُ هِشَامٍ ، قَالَ : حَدَّثَنِي أَبِي ، عَنْ قَتَادَةَ ، عَنْ أَنَسِ بْنِ مَالِكٍ ، قَالَ : " كَانَ أَحَبَّ الثِّيَابِ إِلَى رَسُولِ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ , يَلْبَسُهُ الْحِبَرَةُ " .

حدثنا محمد بن بشار ، قال : حدثنا معاذ بن هشام ، قال : حدثني أبي ، عن قتادة ، عن أنس بن مالك ، قال : " كان أحب الثياب إلى رسول الله صلى الله عليه وسلم , يلبسه الحبرة " .


Anas bin Maalik (R.A) says: "The sheet (body wrap) most liked by Rasulullah (Sallallahu alaihe wasallam) was the Yamaani printed sheet."

সে সময়ে পোশাকের বিখ্যাত স্থান ইয়ামানের তৈরি ডোরা ও কারুকার্য সম্বলিত সূতী বা কাতান প্রকৃতির চাদরকে ‘হিবারা’ বলা হতো। এগুলো কখনো লাল, কখনো নীল, আবার কখনো সবুজ ডোরাকাটা হতো।


This siims to contradict the hadith mentioned at the begining of the chapter where it is stated that Sayyidina Rasulullah (Sallalahu alaihe wasallam) preferred wearing the qamis (kurtah) the most. The 'Ulama have given many explanations for this. The simplest explanation if that there is no difference. He liked the qamis very much and the sheet too. It could also be said that among ordinary clothing that are worn, he liked the qamis the most, and from the ones that are used for outer covering, he liked the sheet the most. It has also been stated that for purposes of evidence this is a much stronger hadith.Some 'Ulama have taken the first hadith for the different types of clothing, among which Sayyidina Rasulullah (S.A.W) liked the qamis most, and this hadith for the coloured clothing, from which he liked the coloured printed sheet the most. Some say the sheet was of a green colour. The object is that, among the colours, green was liked the most, as it is the colour of the clothing in Jannah (paradise).


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

তিনি লাল রঙ্গের নকশী করা চাদরও পরিধান করতেন:

৪৯. আবু জুহাইফা (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, আমি নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম কে লাল নকশী চাদর পরা অবস্থায় দেখেছি। আজও যেন আমি তাঁর উভয় গোড়ালীর ঔজ্জ্বল্য প্রত্যক্ষ করছি।[1]

حَدَّثَنَا مَحْمُودُ بْنُ غَيْلانَ ، قَالَ : حَدَّثَنَا عَبْدُ الرَّزَّاقِ ، قَالَ : حَدَّثَنَا سُفْيَانُ ، عَنْ عَوْنِ بْنِ أَبِي جُحَيْفَةَ ، عَنْ أَبِيهِ ، قَالَ : " رَأَيْتُ النَّبِيَّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ , وَعَلَيْهِ حُلَّةٌ حَمْرَاءُ , كَأَنِّي أَنْظُرُ إِلَى بَرِيقِ سَاقَيْهِ " .

حدثنا محمود بن غيلان ، قال : حدثنا عبد الرزاق ، قال : حدثنا سفيان ، عن عون بن أبي جحيفة ، عن أبيه ، قال : " رأيت النبي صلى الله عليه وسلم , وعليه حلة حمراء , كأني أنظر إلى بريق ساقيه " .


Abu Juhayfah (R.A) says, "I saw Rasulullah (S.A.W) wearing a pair of red (coloured) clothing. The lusture of the feet of Rasulullah (S.A.W) is still befor me."

This incident took place at the time of Hajjatul-Widaa, as is stated if the Bukhaari and other kitaabs of hadith. Sayyidina Sufyaan (R.A) ' Anhu's reason for saying that this was a red coloured clothing (for men). There is a difference of opinion among the 'Ulama'. The Hanafis also state a number of opinions. This has been discussed in the first chapter. Before choosing red-coloured clothing an 'aalim should be consulted. Maulana Gangohi has mentioned a few times in his fataawa (religious rulings) that it is permissible for a man to wear red patterned garment's. From the point of taqwaa (piety) it is better for a man not to wear red coloured garments, since there is a differince of opinion among the learned 'Ulama'.


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

৫০. বারা ইবনে আযিব (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, ‘লাল হুল্লা’ পরিহিত কাউকে আমি রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এর চেয়ে অধিক সুদর্শন দেখিনি। আর তাঁর কেশ (জুম্মা) উভয় কাঁধ স্পর্শ করছিল।[1]

حَدَّثَنَا عَلِيُّ بْنُ خَشْرَمٍ ، قَالَ : حَدَّثَنَا عِيسَى بْنُ يُونُسَ ، عَنْ إِسْرَائِيلَ ، عَنْ أَبِي إِسْحَاقَ ، عَنِ الْبَرَاءِ بْنِ عَازِبٍ ، قَالَ : " مَا رَأَيْتُ أَحَدًا مِنَ النَّاسِ أَحْسَنَ فِي حُلَّةٍ حَمْرَاءَ , مِنْ رَسُولِ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ ، إِنْ كَانَتْ جُمَّتُهُ لَتَضْرِبُ قَرِيبًا مِنْ مَنْكِبَيْهِ " .

حدثنا علي بن خشرم ، قال : حدثنا عيسى بن يونس ، عن إسرائيل ، عن أبي إسحاق ، عن البراء بن عازب ، قال : " ما رأيت أحدا من الناس أحسن في حلة حمراء , من رسول الله صلى الله عليه وسلم ، إن كانت جمته لتضرب قريبا من منكبيه " .


Baraa bin 'Aazib (R.A) says: "I have vever seen anybody more handsome in red clothing than Rasulullah (S.A.W). At that time, the hair of Rasulullah (S.A.W) reached his shoulders.

এখানে উদ্দেশ্য হচ্ছে সেলাই ছাড়া লুঙ্গি ও চাদর। এগুলো তৎকালীন আরব দেশের সর্বাধিক ব্যবহৃত পোশাক ছিল। এটি রাসূলুল্লাহ (সাঃ) সর্বাধিক ব্যবহার করতেন। কেউ কেউ বলেছেন, চাদর ও লুঙ্গি একই প্রকারের একই রংয়ের প্রস্তুত হলে তাকে حلة বলে।


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

তিনি সবুজ চাদরও পরিধান করতেন:

৫১. আবু রিমছা (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, আমি নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম কে দুটি সবুজ চাদর পরিহিত অবস্থায় দেখেছি।[1]

حَدَّثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ بَشَّارٍ ، قَالَ : حَدَّثَنَا عَبْدُ الرَّحْمَنِ بْنُ مَهْدِيٍّ ، قَالَ : حَدَّثَنَا عُبَيْدُ اللَّهِ بْنُ إِيَادٍ ، عَنْ أَبِيهِ ، عَنْ أَبِي رِمْثَةَ ، قَالَ : " رَأَيْتُ النَّبِيَّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ , وَعَلَيْهِ بُرْدَانِ أَخْضَرَانِ " .

حدثنا محمد بن بشار ، قال : حدثنا عبد الرحمن بن مهدي ، قال : حدثنا عبيد الله بن إياد ، عن أبيه ، عن أبي رمثة ، قال : " رأيت النبي صلى الله عليه وسلم , وعليه بردان أخضران " .


Abu Rimthah Taymi (R.A) says,"I saw Rasulullah (S.A.W) covering himself in two green coloured sheets."

রাসূলুল্লাহ (সাঃ) তৎকালীন সময়ে প্রচলিত বিভিন্ন রংয়ের পোশাক পরিধান করেছেন। বিভিন্ন হাদীসের আলোকে প্রমাণিত হয় যে, তাঁর মধ্যে সবুজ, সাদা ও মিশ্রিত রং তিনি পছন্দ করতেন।


This hadith has been quoted twice. It is repeated here briefly.


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

তিনি সাহাবীদেরকে সাদা রঙের কাপড় পরিধান করতে উপদেশ দিয়েছেন:

৫২. ইবনে আব্বাস (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন, তোমরা সাদা রঙের কাপড় পরিধান করবে। তোমাদের জীবিতরা যেন সাদা কাপড় পরিধান করে এবং মৃতদেরকে সাদা কাপড় দিয়ে দাফন দেয়। কেননা, সাদা কাপড় তোমাদের সর্বোত্তম পোশাক।[1]

حَدَّثَنَا قُتَيْبَةُ بْنُ سَعِيدٍ ، قَالَ : حَدَّثَنَا بِشْرُ بْنُ الْمُفَضَّلِ ، عَنْ عَبْدِ اللَّهِ بْنِ عُثْمَانَ بْنِ خُثَيْمٍ ، عَنْ سَعِيدِ بْنِ جُبَيْرٍ ، عَنِ ابْنِ عَبَّاسٍ ، قَالَ : قَالَ رَسُولُ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ : " عَلَيْكُمْ بِالْبَيَاضِ مِنَ الثِّيَابِ , لِيَلْبَسْهَا أَحْيَاؤُكُمْ ، وَكَفِّنُوا فِيهَا مَوْتَاكُمْ ، فَإِنَّهَا مِنْ خِيَارِ ثِيَابِكُمْ " .

حدثنا قتيبة بن سعيد ، قال : حدثنا بشر بن المفضل ، عن عبد الله بن عثمان بن خثيم ، عن سعيد بن جبير ، عن ابن عباس ، قال : قال رسول الله صلى الله عليه وسلم : " عليكم بالبياض من الثياب , ليلبسها أحياؤكم ، وكفنوا فيها موتاكم ، فإنها من خيار ثيابكم " .


Ibn 'Abbaas (R.A) says that Rasulullah (S.A.W) used to say: " Choose white clothing, as it is the best clothing. White clothing should be worn whilst living, and the dead should be buried in white."

In this hadith it is not stated that Sayyidina (S.A.W) wore white clothing. Its mention in the 'Shamaa-il Tirmikhi' is therefore implict. Idt can be explaiced that when Sayyidina Rasulullah (S.A.W) encouraged the wearing of white clothing, then he must have worn it himself. If is clearly stated in the Bukhaari that Sayyidina Rasulullah (S.A.W) wore white clothing.


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

৫৩. সামুরা ইবনে জুনদুব (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন, তোমরা সাদা কাপড় পরিধান করো। কারণ, তা সর্বাধিক পবিত্র ও উত্তম। আর তা দিয়েই তোমরা মৃতদের কাফন দাও।[1]

حَدَّثَنَا مُحَمَّدُ بْنُ بَشَّارٍ ، قَالَ : حَدَّثَنَا عَبْدُ الرَّحْمَنِ بْنُ مَهْدِيٍّ ، قَالَ : حَدَّثَنَا سُفْيَانُ ، عَنْ حَبِيبِ بْنِ أَبِي ثَابِتٍ ، عَنْ مَيْمُونِ بْنِ أَبِي شَبِيبٍ ، عَنْ سَمُرَةَ بْنِ جُنْدُبٍ ، قَالَ : قَالَ رَسُولُ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ : " الْبَسُوا الْبَيَاضَ , فَإِنَّهَا أَطْهَرُ وَأَطْيَبُ ، وَكَفِّنُوا فِيهَا مَوْتَاكُمْ " .

حدثنا محمد بن بشار ، قال : حدثنا عبد الرحمن بن مهدي ، قال : حدثنا سفيان ، عن حبيب بن أبي ثابت ، عن ميمون بن أبي شبيب ، عن سمرة بن جندب ، قال : قال رسول الله صلى الله عليه وسلم : " البسوا البياض , فإنها أطهر وأطيب ، وكفنوا فيها موتاكم " .


Samurah bun Jundub (R.A) says: " Rasulullah (S.A.W) said, "Wear white clothing because it is more taahir (paak) and clean, and also clothe your dead in it."

By 'It is more taahir (paak) and clean is meant that if a small stain appears, it will show clearly, whereas in coloured clothing it does not show easily.


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

তিনি কালো রঙের পশমী চাদরও পরিধান করতেন:

৫৪. আয়েশা (রাঃ) হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, একবার রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম প্রত্যুষে বাইরে বের হন। তখন তাঁর দেহে কালো পশমের একটি চাদর শোভা পাচ্ছিল।[1]

حَدَّثَنَا أَحْمَدُ بْنُ مَنِيعٍ ، حَدَّثَنَا يَحْيَى بْنُ زَكَرِيَّا بْنِ أَبِي زَائِدَةَ ، قَالَ : حَدَّثَنَا أَبِي ، عَنْ مُصْعَبِ بْنِ شَيْبَةَ ، عَنْ صَفِيَّةَ بِنْتِ شَيْبَةَ ، عَنْ عَائِشَةَ , قَالَتْ : " خَرَجَ رَسُولُ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ ذَاتَ غَدَاةٍ , وَعَلَيْهِ مِرْطٌ مِنْ شَعَرٍ أَسْودَ " .

حدثنا أحمد بن منيع ، حدثنا يحيى بن زكريا بن أبي زائدة ، قال : حدثنا أبي ، عن مصعب بن شيبة ، عن صفية بنت شيبة ، عن عائشة , قالت : " خرج رسول الله صلى الله عليه وسلم ذات غداة , وعليه مرط من شعر أسود " .


Ummul Mu-mineen, 'Aayeshah (R.A) reports: "Rasulullah (S.A.W) once left the house in the morning, wearing a sheet made of black hair."


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)

পরিচ্ছেদঃ

তিনি আঁটসাঁট আস্তিন বিশিষ্ট রুমী জুব্বা পরিধান করেছিলেন:

৫৫. মুগীরা ইবনে শু’বা হতে বর্ণিত। তিনি বলেন, একবার রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম আঁটসাঁট আস্তিন বিশিষ্ট একটি রুমী জুব্বা পরিধান করেন।[1]

حَدَّثَنَا يُوسُفُ بْنُ عِيسَى ، قَالَ : حَدَّثَنَا وَكِيعٌ ، قَالَ : حَدَّثَنَا يُونُسُ بْنُ أَبِي إِسْحَاقَ ، عَنْ أَبِيهِ ، عَنِ الشَّعْبِيِّ ، عَنْ عُرْوَةَ بْنِ الْمُغِيرَةِ بْنِ شُعْبَةَ ، عَنْ أَبِيهِ ، أَنَّ النَّبِيَّ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ , " لَبِسَ جُبَّةً رُومِيَّةً , ضَيِّقَةَ الْكُمَّيْنِ " .

حدثنا يوسف بن عيسى ، قال : حدثنا وكيع ، قال : حدثنا يونس بن أبي إسحاق ، عن أبيه ، عن الشعبي ، عن عروة بن المغيرة بن شعبة ، عن أبيه ، أن النبي صلى الله عليه وسلم , " لبس جبة رومية , ضيقة الكمين " .


Mughirah bin Shu'bah (R.A) says: "Rasulullah (S.A.W) wore a rumi Jubbah which had narrow sleeves."

রাসূলুল্লাহ (সাঃ) যখন যে পোশাক পেয়েছেন তাই ব্যবহার করেছেন। তিনি সুতি, পশমী ও কাতানের তৈরি প্রভৃতি পোশাক ব্যবহার করেছেন। সবুজ, লাল, হলুদ, সাদা, কালো ও মিশ্রিত যখন যে রংয়ের পোশাক পেয়েছেন পরিধান করেছেন। কারণ আরবে কোন পোশাক তৈরি হতো না। এগুলো মক্কা-মদীনার বাইরে সিরিয়া, ইয়ামান প্রভৃতি দেশে তৈরী হতো। তাই ব্যবসায়ীগণ যে পোশাক আনতেন তাই সাধ্যমতো ক্রয় করে বা উপহার হিসেবে যা পেতেন তাই ব্যবহার করতেন।


This incident was at the time of Ghazwah Tabuk. The 'Ulama have interpreted from this hadith that a thing made by non-believers is not najis (na-paak) till we can outwardly find of this. Upto that time there were no Muslims in Rome, and Sayyidina Rasulullah (S.A.W) wore the clothing made by them.


হাদিসের মানঃ সহিহ (Sahih)
পুনঃনিরীক্ষণঃ
সহীহ শামায়েলে তিরমিযী
৮. রাসূলুল্লাহ (ﷺ)-এর পোশাক-পরিচ্ছদ (باب ما جاء في لباس رسول الله ﷺ)
দেখানো হচ্ছেঃ থেকে ১২ পর্যন্ত, সর্বমোট ১২ টি রেকর্ডের মধ্য থেকে