লা-তাহযান [হতাশ হবেন না] ড. আয়িদ আল করনী ১ টি অধ্যায় ৩৪৫ টি অনুচ্ছেদ সম্পূর্ণ বইটি একসাথে পড়তে
লা-তাহযান [হতাশ হবেন না] ড. আয়িদ আল করনী ১ টি অধ্যায় ৩৪৫ টি অনুচ্ছেদ সম্পূর্ণ বইটি একসাথে পড়তে
অধ্যায় ও অনুচ্ছেদ তালিকা
লা-তাহযান - অনুচ্ছেদ সূচি অনুচ্ছেদ ৩৪৫ টি ১. হে আল্লাহ! ২. একটু ভেবে দেখুন এবং কৃতজ্ঞ হোন ৩. অতীত চিরদিনের মতো চলে গেছে ৪. মনে করুন আজই শেষ দিন ৫. ভবিষ্যৎ নিয়ে দুশ্চিন্তা পরিহার করুন ৬. তীব্র নিন্দা ও অপ্রীতিকর সমালোচনা যেভাবে নিবেন ৭. কারো ধন্যবাদ পাবার আশা করবেন না ৮. পরোপকারেই পরম আত্মতৃপ্তি ৯. কাজের মাধ্যমে একঘেয়েমিজনিত বিরক্তি দূর করুন ১০. অনুকরণ পটু, নকলকারী, ভানকারী, ছলনাকারী ও কপট হবেন না ১১. তক্বদীর বা ভাগ্য ১২. দুঃখের সাথেই রয়েছে সুখ ১৩. টক লেবুকে মিষ্টি শরবত বানান ১৪. কে উত্তম? ১৫. আপনার গৃহই আপনার জন্য যথেষ্ট ১৬. আল্লাহর কাছে আপনার প্রাপ্তি রয়েছে ১৭. বিশ্বাসই জীবন ১৮. মধু আহরণ কর কিন্তু মৌচাক ভেঙ্গ না ১৯. জেনে রাখুন! আল্লাহর জিকিরেই আত্মা শান্তি পায় ২০. হিংসা হিংসুককে ধ্বংস করে ২১. জীবনকে স্বাভাবিকভাবে গ্রহণ করুন ২২. দুর্দশাগ্রস্তদের কথা ভেবে সান্ত্বনা লাভ করুন ২৩. সালাত ... সালাত ২৪. মহান আল্লাহ কতইনা উত্তম কর্মবিধায়ক ২৫. আবদ্ধ গৃহ ছেড়ে পৃথিবীতে ভ্রমণ করুন ২৬. ধৈর্যের কঠিন পথকে অবলম্বন করুন ২৭. গোটা পৃথিবীর বোঝা নিজের ঘাড়ে নিবেন না ২৮. তুচ্ছ জিনিসের চাপে ভেঙ্গে পড়বেন না ২৯. আল্লাহ যা দিয়েছেন তাতে সন্তুষ্ট থাকুন ৩০. জান্নাতের কথা স্মরণ করুন ৩১. এভাবে আমি তোমাদেরকে মধ্যপন্থী জাতি বানিয়েছি ৩২. আমাদের জীবন ব্যবস্থায় বিষন্ন হওয়া অবাঞ্ছিত ৩৩. এক মুহূর্ত ভাবুন ৩৪. মৃদু হাসুন ৩৫. যা কাঙ্ক্ষিত তাই মিতচার ৩৬. জান্নাতের আনন্দসমূহের মধ্যে হাসিও থাকবে ৩৭. হাসুন-একটু ভাবুন ৩৮. ব্যথার দান ৩৯. জ্ঞানের কল্যাণ ৪০. সুখের শিল্পকলা ৪১. সুখ-শিল্পের মূলকথা ৪২. সুখ-কলা : একটু ভাবুন ৪৩. আবেগ নিয়ন্ত্রণ ৪৪. নবীর সঙ্গী-সাথীদের সৌভাগ্য ৪৫. আপনার জীবন থেকে ক্লান্তি ও বিরক্তি দূর করুন ৪৬. দুশ্চিন্তা পরিহার করুন ৪৭. দুশ্চিন্তা করবেন না ৪৮. উদ্বিগ্নতা দূর করুন-একটু ভাবুন ৪৯. দুঃখিত হবেন না- সব কিছুই ভাগ্যানুসারে ঘটবে ৫০. দুঃখিত হবেন না- একটি সুখদায়ক পরিণতির জন্য ধৈর্য সহকারে অপেক্ষা করুন ৫১. সুফলের জন্য ধৈর্যসহ অপেক্ষা করুন ৫২. দুশ্চিন্তা করবেন না : আল্লাহর নিকট বেশি বেশি ক্ষমা প্রার্থনা করুন। কেননা, আপনার প্রভু অতি ক্ষমাশীল ৫৩. দুশ্চিন্তা করবেন না-সর্বদা আল্লাহকে স্মরণ করুন ৫৪. বিষাদগ্রস্থ হবেন না- কখনও আল্লাহ্‌র রহমত হতে নিরাশ হবেন না ৫৫. তুচ্ছ জিনিস নিয়ে দুঃখ করবেন না ৫৬. বিষন্ন হবেন না- দুশ্চিন্তা দূর করুন ৫৭. অন্যদের দোষারোপ ও অবজ্ঞায় দুঃখ করবেন না ৫৮. গরীব হওয়াতে দুঃখ করবেন না ৫৯. কী ঘটবে সে ভয়ে বিষগ্ন হবেন না ৬০. হিংসুক ও দুর্বলমনা লোকদের সমালোচনায় দুঃখিত হবেন না ৬১. একটু ভাবুন ৬২. মনমরা হবেন না- পরোপকার করুন ৬৩. হিংসা নতুন কিছু নয় ৬৪. একটু ভাবুন ৬৫. রিযিকের অভাবে বিষগ্ন হবেন না ৬৬. অন্যদের তুলনায় আপনার পরীক্ষা সহজই ৩৭. অন্যদের ব্যক্তিত্বের অনুকরণ করবেন না ৬৮. নির্জনতা ও নির্জন বাসের উপকারিতা ৬৯. সংকটে বিচলিত হবেন না ৭০. সংকট নিয়ে একটু ভেবে দেখুন ৭১. দুঃখিত হবেন না- সুখের মুলনীতি ৭২ ছয়টি মূলকথা যখন আপনার নিকট তখন কেন দুঃখ করা? ৭৩. সুখের মূলনীতি- যেসব আয়াত নিয়ে ভাবতে হবে ৭৪. বই আপনার উত্তম সঙ্গী ৭৫. বইয়ের মাহাত্ম্য নিয়ে কিছু কথা ৭৬. পাঠের উপকারিতা ৭৭. একটুখানি ভেবে দেখুন ৭৮. দুঃখ করবেন না-আরেকটি জীবন আসবে ৭৯. অনেক কাজ জমে গেলে অতিরিক্ত কষ্টবোধ করবেন না ৮০. দুঃখ করবেন না-নিজেকে এ প্রশ্নগুলো করুন ৮১. জটিল পরিস্থিতিতে হতাশ হবেন না ৮২. এ আয়াতগুলো নিয়ে একটু ভাবুন ৮৩. হতাশা দেহ-মনকে দুর্বল করে ৮৪. হতাশা ক্ষতের কারণ ৮৫. হতাশার আরো কিছু কুপ্রভাব ৮৬. হতাশা ও ক্রোধের ফল ৮৭. ধৈর্যের সাথে কষ্ট সহ্য করুন ৮৮. আপনার প্রভু সম্বন্ধে সুধারণা পোষণ করুন ৮৯. মন যখন আনমনা ৯০. গঠনমূলক সমালোচনাকে সাদরে গ্রহণ করুন ৯১. অধিকাংশ গুজবই ভিত্তিহীন ৯২. ভদ্রতা সংঘর্ষ এড়ায় ৯৩. অতীত আর কখনো ফিরে আসবে না ৯৪. জীবনখানিতো দুঃখ করার জন্য নয় ৯৫. এ কথা কয়টি একটু ভেবে দেখুন ৯৬. আল্লাহর প্রতি বিশ্বাস থাকা পর্যন্ত হতাশ হবেন না ৯৭. তুচ্ছ জিনিসের জন্য দুঃখ করবেন না-পুরো পৃথিবীই নগণ্য ৯৮. পৃথিবীটা এমনই ৯৯. অন্যদেরকে সাহায্য করার চেষ্টা করুন ১০০. যতক্ষণ আপনার এক টুকরো রুটি, এক গ্লাস পানি ও লজ্জাস্থান আবৃত করার মত কাপড় থাকে ততক্ষণ নিজেকে বঞ্চিত মনে করবেন না ১০১. আপনি এক অনন্য সৃষ্টি ১০২. যা কিছু ক্ষতিকর মনে হয় তার অনেক কিছুই কল্যাণকর ১০৩. বিশ্বাসই শ্রেষ্ঠ ঔষধ ১০৪. আশাহারা হবেন না ১০৫. জীবনকে যতটা সংক্ষিপ্ত মনে করেন, তার চেয়েও সংক্ষিপ্ত ১০৬. মৌলিক প্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি থকা পর্যন্ত হতাশ হবেন না ১০৭. অল্পে তুষ্টি বিষন্নতা ও হতাশা দূর ১০৮. আপনার যদি একটি অঙ্গহানি হয়ে থাকে তবুও তো এর ক্ষতিপূরণ করার জন্য অন্যান্য অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ আছে। ১০৯. দিন বদলের সাথে ভালো-মন্দ পালাক্রমে আসে ১১০. আল্লাহর প্রশস্ত জমিনে ভ্রমণ করুন ১১১. নবীর এ বাণীগুলো একটু ভেবে দেখুন ১১২. জীবনের শেষ মুহুর্তে ১১৩. বিপর্যয়ে বিচলিত হবেন না ১১৪. দুঃখ করবেন না-এ পৃথিবী আপনার দুঃখের যোগ্য নয় ১১৫. হতাশ হবেন না-করণ যে আপনি আল্লাতে বিশ্বাস করেন ১১৬. একটু খানি ভেবে দেখুন ১১৭. হতাশ হবেন না অসুবিধা সফলতাকে প্রতিরোধ করতে পারে না ১১৮. ইসলাম গ্রহণ করার কারণে হতাশ হওয়ার কোনো কারণ নেই ১১৯. যা সুখ বয়ে আনে ১২০. সুখের উপকরণ ১২১. নির্দিষ্ট সময়ের আগে আপনি মৃত্যুবরণ করবেন না ১২২. হে রাজাধিরাজ-মহামহিম ও মর্যাদাবান আল্লাহ! ১২৩. একটুখানি ভেবে দেখুন ১২৪. হিংসুকের ক্ষতি থেকে রক্ষা পাওয়ার উপায় ১২৫. সদাচার ১২৬. নির্ঘুম রাত ১২৭. পাপের কুফল ১২৮. রিযিক তালাশ করুন কিন্তু লোভ করবেন না ১২৯. হেদায়াতের রহস্য ১৩০. মহৎ জীবনের জন্য মণি-মুক্তা (বা উপদেশাবলী) ১৩১. হতাশ হবেন না-আপনার প্রকৃত অবস্থা অনুযায়ী চলতে শিখুন ১৩২. হতাশা দুর্দশা বয়ে আনে ১৩৩. হতাশা আত্মহত্যা ঘটাতে পারে ১৩৪. আল্লাহর নিকট ক্ষমা চাইলে রহমতের দুয়ার খুলে যায় ১৩৫. লোকেরা আপনার উপর নির্ভর করুক, কিন্তু , আপনি তাদের উপর নির্ভর করবেন না ১৩৬. বিচক্ষণতা ১৩৭. আল্লাহ ছাড়া অন্য কাউকে আঁকড়িয়ে ধরবেন না। ১৩৮. যা করলে শান্তি পাবেন ১৩৯. তক্বদীর ১৪০. স্বাধীনতার মজা ১৪১. মাটিই ছিল সুফিয়ান সাওরির বালিশ ১৪২. গণকের কথা বিশ্বাস করবেন না ১৪৩. বোকাদের গালিতে আপনার কিছু হবে না ১৪৪. এ বিশ্ব জগতের সৌন্দর্য উপভোগ করুন ১৪৫. লোভ করে লাভ নেই ১৪৬. কষ্টের মাধ্যমে পাপ ক্ষমা হয় ১৪৭. আমাদের জন্য একমাত্র আল্লাহই যথেষ্ট আর তিনি কতইনা উত্তম অভিভাবক ১৪৮. সুখের উপাদান ১৪৯. গুরুত্বপূর্ণ কাজে চাপ বেশি ১৫০. সালাত পড়তে আসুন ১৫১. দান দাতার জন্য শান্তি বয়ে আনে ১৫২. রাগ করবেন না ১৫৩. সকালের দোয়া ১৫৪. একটু খানি ভেবে দেখুন। ১৫৫. আল কুরআন : মোবারক কিতাব ১৫৬. যশখ্যাতির আশা করবেন না, যদি করেন তবে মানসিক চাপগ্ৰস্ত ও উদ্বিগ্ন হবেন ১৫৭. উত্তম জীবন ১৫৮. বিপদে ধৈর্য ধরুণ ১৫৯. আল্লাহর নিকট আত্মসমর্পণ করে তার ইবাদত করুন ১৬০. শাসক থেকে কাঠমিস্ত্রি ১৬১. যাদের সঙ্গ দুর্বিসহ তাদের সঙ্গ শান্তি নষ্ট করে ১৬২. দুর্যোগগ্রস্তদের জন্য ১৬৩. তাওহীদের সুফল ১৬৪. আপনার ভিতরের ও বাহিরের যত্ন নিন ১৬৫. আল্লাহর নিকট আশ্রয় চান ১৬৬. আমি আল্লাহর প্রতি পরিপূর্ণ ঈমান রাখি ১৬৭. তারা তিনটি বিষয়ে ঐক্যমত পোষণ করেন ১৬৮. সীমালঙ্ঘনকারীর অন্যায় আচরণ ১৬৯. খসরু ও বৃদ্ধা ১৭০. একটি খুঁত আরেকটি চমৎকার গুণের কারণ হতে পারে ১৭১. বোকাদের নিয়ে কিছু কথা ১৭২. আল্লাহর বিশ্বাসই মুক্তির উপায় ১৭৩. কাফেররাও বিভিন্ন স্তরের ১৭৪. লৌহ-দৃঢ় ইচ্ছা ১৭৫. আমাদের সহজাত প্রবৃত্তি বা জন্মগত স্বভাব-প্রকৃতি ১৭৬. আপনার রিযিক আপনার নিকট আসবেই ১৭৭. শুভ পরিণতির জন্য কঠোর পরিশ্রম করুন ১৭৮. আপনার জীবন মহামূল্য সময়ে পরিপূর্ণ ১৭৯. একটুখানি ভেবে দেখুন ১৮০. মহৎ কাজই সুখের উপায় ১৮২. উপকারী জ্ঞান ও অপকারী জ্ঞান ১৮৩. বুঝে-শুনে ও ভেবেচিন্তে বেশি বেশি পড়াশুনা করুন ১৮৪. নিজের হিসাব রাখুন ১৮৫. তিনটি ভুল ১৮৬. সতর্ক থাকুন, সঠিক পরিকল্পনা গ্রহণ করুন ১৮৭. মানুষকে জয় করা ১৮৮. ভ্রমণ করুন ১৮৯. তাহাজ্জুদ সালাত পড়ুন ১৯০. জান্নাতই আপনার পুরস্কার ১৯১. সত্যিকার ভালবাসা ১৯২. শরীয়ত সহজ ১৯৩. শান্তির মূলকথা ১৯৪. রূপের প্রেমে মুগ্ধ হওয়া থেকে সাবধান! ১৯৫. প্রচণ্ড ও অদম্য প্রেমের কিছু ঔষুধ ১৯৬. ভ্রাতৃত্বের অধিকার ১৯৭. পাপ মার্জনার দু’টি রহস্য ১৯৮. রিযিক তালাশ করুন কিন্তু লোভ করবেন না ১৯৯. একটুখানি ভেবে দেখুন ২০০. কল্যাণে ভরপুর এক ধর্ম ২০১. ভয় করো না তুমিই বিজয়ী হবে ২০২. চারটি বিষয় হতে দূরে থাকুন ২০৩. যদি শান্তি পেতে চান তবে আপনার প্রভূর মুখাপেক্ষী হোন ২০৪. সান্ত্বনার দু’টি মহান বাণী ২০৫. দুঃখ-কষ্টের কিছু উপকারিতা ২০৬. বিদ্যা ২০৭. সুখ স্বর্গীয় ২০৮. মৃত্যুর পর স্মরণীয় হওয়া দ্বিতীয় জীবন-তুল্য ২০৯. ন্যায়পরায়ণ প্ৰভু ২১০. নিজের ইতিহাস লিখুন ২১১. মনোযোগের সাথে আল্লাহর কালাম (বাণী) শুনুন ২১২. সবাইতো সুখী হতে চায়, কিন্তু, ২১৩. সুদিনে কৃতজ্ঞ থেকে দুর্দিনের জন্য প্রস্তুত থাকুন ২১৪. জান্নাত ও জাহান্নাম ২১৫. আমি কি আপনার বক্ষকে প্রশস্ত করে দিইনি? ২১৬. ভালো জীবন ২১৭. তাহলে সুখ কী? ২১৮. ভালো কথা তার নিকটই উত্থিত হয় ২১৯. তোমার প্রতিপালকের গ্রেপ্তার এমনই ২২০. মজলুমের দোয়া বা অত্যাচারিতের প্রার্থনা ২২১. ভালো বন্ধু থাকার গুরুত্ব ২২২. ইসলামে নিরাপত্তা অবধারিত ২২৩. ক্ষণস্থায়ী মর্যাদা ২২৪. পুণ্যকর্মই সুখী জীবনের মুকুট ২২৫. চিরস্থায়ী জীবন ও জান্নাত সেখানে, এখানে নয় ২২৬. দুনিয়ার হাল-হাকিকত ২২৭. সুখের চাবিকাঠি ২২৮. একটুখানি ভেবে দেখুন ২২৯. তারা যেভাবে জীবন যাপন করতেন ২৩০. ধৈর্য নিয়ে জ্ঞানীদের বাণী ২৩১. আশাপ্রদ মনোভাবের গুরুত্ব ২৩২. ধৈর্য নিয়ে কিছু কথা ২৩৩. খানিক ভাবুন ২৩৪. দরিদ্র হওয়াতে দুঃখ করবেন না; কারণ, ২৩৫. পড়া নিয়ে একটি কথা ২৩৬. হতাশ হবেন না (আল্লাহর সৃষ্টি রহস্য নিয়ে গবেষণা করুন) ২৩৭. হে আল্লাহ! হে আল্লাহ! ২৩৮. দুঃখ করবেন না, অবস্থার পরিবর্তন ঘটবেই-ইনশাল্লাহ ২৩৯. দুঃখ করে শক্রদের আনন্দ দিবেন না ২৪০. আশাবাদ বনাম সন্দেহবাদ ২৪১. হে আদম সন্তান, হতাশ হয়ো না ২৪২. একটু ভেবে দেখুন ২৪৩. ছদ্মবেশে কল্যাণ ২৪৪. অল্পে তুষ্টির ফল ২৪৫. আল্লাহর প্রতি সন্তুষ্ট হওয়া ২৪৬. অসন্তুষ্টদের জন্য রয়েছে গজব ২৪৭. অল্পে তুষ্ট হয়ে যে লাভ হয় ২৪৮. প্রভুর বিরুদ্ধে অভিযোগ করবেন না ২৪৯. ন্যায্য বিধান ২৫০. অসন্তোষে কোন লাভ নেই ২৫১. সন্তুষ্টিতেই নিরাপত্তা ২৫২. অসন্তোষ সন্দেহের দ্বার ২৫৩. সন্তুষ্টিই সমৃদ্ধি ও নিরাপত্তা ২৫৪. সন্তুষ্টির ফল কৃতজ্ঞতা (শুকরিয়া) ২৫৫. অসন্তুষ্টির ফল অবিশ্বাস (কুফুরি) ২৫৬. অসন্তুষ্টি শয়তানের ফাঁদ ২৫৭. অল্পে তুষ্টি নিয়ে আরেকটি কথা ২৫৮. ভাইদের ভুলক্রটি ক্ষমা করা ২৫৯. সুস্থতা ও অবসরের সুবিধা ভোগ করুন ২৬০. বিশ্বাসীদের আল্লাহ রক্ষা করেন ২৬১. অন্বেষণকারীর পথের নিশানা ২৬২. সম্মানে ভূষিত হওয়াও পরীক্ষা ২৬৩. চিরস্থায়ী ধন-ভাণ্ডার ২৬৪. দৃঢ় প্রত্যয় অলঙ্ঘণীয় বাধাকেও অতিক্রম করতে পারে ২৬৫. জ্ঞানার্জনের জন্য পঠন ২৬৬. আর আমি যখন অসুস্থ হই তিনিই আমাকে সুস্থ করেন ২৬৭. সতর্কতা অবলম্বন করুন ২৬৮. কোন কিছু করার স্থির সিদ্ধান্ত নিন ও পরে তা করুন ২৬৯. এ পার্থিব জীবন ২৭০. ক্ষতি থেকে পলায়ন ক্ষণস্থায়ী সমাধান ২৭১. মনে রাখুন যে আপনি পরম করুণাময়ের সাথে লেনদেন করছেন ২৭২. আশাবাদ ২৭৩. গোটা জীবনটাই পরিশ্রম ২৭৪. একটু ভেবে দেখুন ২৭৫. মধ্যম পন্থা ধ্বংস থেকে রক্ষা করে ২৭৬. প্রধান বৈশিষ্ট্য দ্বারাই মানুষকে গণ্য করা হয় ২৭৭. মানুষের সহজাত বৈশিষ্ট্য ২৭৮. শুধুমাত্র বুদ্ধিমান হওয়াই যথেষ্ট নয়- হেদায়াতও প্রয়োজন ২৭৯. অন্তরের সৌন্দর্যেবিশ্বজগতের সৌন্দর্য উপলব্ধি ২৮০. দুঃখ-কষ্টের পরেই আরাম-আয়েশ ২৮১. আপনি হিংসার উর্ধ্বে ২৮২. একটু ভাবুন ২৮৩. জ্ঞানই শান্তির চাবিকাঠি ২৮৪. ভুল পদ্ধতি ২৮৫. সর্বশ্রেষ্ঠ মহামানব ২৮৬. এক সময়ে একটি মাত্র পদক্ষেপ ২৮৭. কম থাক বা বেশি থাক কৃতজ্ঞ হতে শিখুন ২৮৮. তিনটি সাইন বোর্ড ২৮৯. একটু ভেবে দেখুন ২৯০. দুশ্চিন্তা, উদ্বিগ্নতা ও ভয় থেকে মুক্ত হোন ২৯১. দান কর্ম ২৯২. বিনোদন ও বিশ্রাম ২৯৩. একটু ভাবুন ২৯৪. বিশ্বজগৎ নিয়ে গভীরভাবে চিন্তা করুন ২৯৫. গবেষণালদ্ধ পরিকল্পনার অনুসরণ করুন ২৯৬. কাজকর্মে অগোছালো হবেন না ২৯৭. আপনার ঈমান ও চরিত্র অনুসারে আপনার মূল্য ২৯৮. সাহাবীদের সৌভাগ্য ২৯৯. কাফেরদের দুর্ভাগ্য ৩০০. একটু খানি ভেবে দেখুন ৩০১. নারী জাতির প্রতি কোমল থাকুন ৩০২. প্রতিদিন ভোরে একবার হাসুন ৩০৩. প্রতিশোধ গ্রহণের মোহ বিষ বিশেষ, যা রুগ্ন আত্মায় প্রবাহিত হয় ৩০৪. ক্ষণিক ভাবুন ৩০৫. অন্যের ব্যক্তিত্বে নিজেকে বিলিয়ে দিবেন না ৩০৬. আল্লাহর পক্ষ থেকে সাহায্যের জন্য অপেক্ষা করা ৩০৭ যে কাজ করতে আপনার আনন্দ লাগে সে কাজ চালিয়ে যান ৩০৮. ক্ষণকাল ভেবে দেখুন ৩০৯. হিদায়াত হলো ঈমানের স্বাভাবিক ফল ৩১০. মধ্যমপন্থা ৩১১. চরমপন্থা পরিহার করা ৩১২. ক্ষণকাল ভাবুন ৩১৩. ধাৰ্মিক কারা? ৩১৪. আল্লাহ তার বান্দাদের প্রতি সর্বাপেক্ষা দয়ালু ৩১৫. আল্লাহ্ মুক্তাকীকে এমন উৎস থেকে রিযিক দিবেন যে সে কল্পনাও করতে পারবে না ৩১৬. ত্বরিত প্রতিদান ৩১৭. তুমি যখন সাহায্য চাও, তখন তুমি তা আল্লাহর নিকটেই চাও ৩১৮. মূল্যবান মুহূর্ত ৩১৯. ইলাহী তাকদীর বা স্বর্গীয় পূর্বনির্ধারিত বিধান (ও ৩২০. মৃত্যু) ৩২১. আল্লাহ একাই সর্বশক্তিমান ৩২২. অপ্রত্যাশিত সাহায্য ৩২৩. আউলিয়াদের জন্য কারামত আছে ৩২৪. কর্মবিধায়ক হিসেবে আল্লাহই যথেষ্ট ৩২৫. বিশ্বজগতের সবকিছুই আল্লাহর মহিমাকীর্তন করে ৩২৬. আল্লাহর প্রতি সন্তুষ্ট থাকুন ৩২৭. নাখলাহ উপত্যকা থেকে গায়েবী আওয়াজ ৩২৮. প্রথম মুসলিম জাতি ৩২৯. ধ্বংস হওয়ার পরেও সন্তুষ্টি ৩৩০. সিদ্ধান্ত নিতে দৃঢ় প্রত্যয়ী হোন ৩৩১. মু’মিন ব্যক্তি দৃঢ় ও স্থির সংকল্প ৩৩২. চটকদার কথার খেসারত ৩৩৩. পরম সুখ-শান্তি জান্নাতেই ৩৩৪. বিনয় ও নম্রতা লক্ষ্য অর্জনে সহায়তা করে ৩৩৫. দুশ্চিন্তা করে কোন লাভ নেই ৩৩৬. জীবনের মৌলিক প্রয়োজনীয় জিনিস থাকার মাঝেই মনের শান্তি ৩৩৭. সর্বাপেক্ষা খারাপ ঘটনার দৃশ্য অবলোকনের জন্য প্রস্তুত থাকুন ৩৩৮. আপনি যদি সুস্থ থাকেন এবং আপনার যথেষ্ট খাবার থাকে তবে আপনি ভালোই আছেন ৩৩৯. শক্রতার আগুন ছড়িয়ে পড়ার আগেই তা নিভিয়ে ফেলুন ৩৪০. অন্যের প্রচেষ্টাকে খর্ব করবেন না ৩৪১. অন্যদের থেকে আপনি যেরূপ আচরণ কামনা করেন অন্যদের সাথে আপনি সেরূপ আচরণই করুন ৩৪২. শিষ্টাচারী, মার্জিত, ভদ্র ও সৌজন্যশীল হোন ৩৪৩. কৃত্রিমতা পরিহার করুন ৩৪৪. আপনি যদি সত্যিই কোন কিছু করতে না পারেন তবে তা করা বাদ দিন ৩৪৫. জীবনে বিশৃঙ্খল হবেন না ৩৪৬. প্রাচুর্যের প্রতিযোগিতা তোমাদেরকে মোহাচ্ছন্ন করে রেখেছে ৩৪৭. সমাপনী অধ্যায়